তথ্য কমিশন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ৩০ নভেম্বর ২০১৭

সিনিয়র সাংবাদিকদের সাথে তথ্য কমিশনের মতবিনিময়


প্রকাশন তারিখ : 2017-11-30

সিনিয়র সাংবাদিকদের সাথে তথ্য কমিশনের মতবিনিময়

তথ্য কমিশনের পরিকল্পনা ও কার্যক্রম মূল্যায়নের লক্ষ্যে সংবাদপত্র ও গণমাধ্যমের সিনিয়র সাংবাদিকদের সাথে এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।


আজ রাজধানীর আগারগাঁও তথ্য কমিশনের সম্মেলন কক্ষে প্রধান তথ্য কমিশনার ড. মো: গোলাম রহমানের সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় তথ্য কমিশনার নেপাল চন্দ্র সরকার, বিটিভির উপ-মহাপরিচালক (অনুষ্ঠান) সুরথ কুমার সরকার, আর টিভির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সৈয়দ আশিক রহমান, চ্যানেল ২৪ এর এনসিএ সম্পাদক রাহুল রাহা, এটিএন বাংলার প্রধান নির্বাহী সম্পাদক জয়. ই. মামুন, এন টিভির প্রধান বার্তা সম্পাদক জহিরুল আলম, চ্যানেল আই এর বার্তা সম্পাদক জাহিদ নেওয়াজ খান, মাছরাঙ্গা টেলিভিশনের বার্তা প্রধান রেজাউনুল হক সহ বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সিনিয়র সাংবাদিকগণ উপস্থিত ছিলেন।

সভায় প্রধান তথ্য কমিশনার বলেন, তথ্য অধিকার আইন ব্যবহার করে জনগণ তার জীবন মানকে সমৃদ্ধ করতে পারে। তথ্যের অবাধ প্রবাহ নিশ্চিত করা হলে রাষ্ট্রযন্ত্রের সকল স্তরে স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা বৃদ্ধি পাবে। ফলে স্বভাবিকভাবেই দুর্নীতি হ্রাস পাবে, সুশাসন প্রতিষ্ঠিত হবে এবং গণতান্ত্রিক ব্যবস্থা শক্তিশালী হবে।

সভার উদ্বোধনী বক্তব্যে তিনি আরো বলেন, ইতোমধ্যে বিভিন্ন দপ্তরের প্রায় ২৫,০০০ দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নিয়োগ করা হয়েছে যাদেরকে পর্যায়ক্রমে তথ্য অধিকার আইনের প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে এবং বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসহ উপজেলা পর্যায়ে জনঅবহিতকরণ সভা করা হচ্ছে। বর্তমানে দয়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তাদের অনলাইনেও প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা চালু হয়েছে। এছাড়া জনসচেতনতা সৃষ্টিতে পট গান, গম্ভিরা, বিভিন্ন টিভিসি ও অন্যান্য প্রচার উপকরণ তৈরি করা হয়েছে। বাংলাদেশ বেতারে তথ্য অধিকার সম্পর্কিত লাইভ ফোনিং প্রোগ্রাম হচ্ছে। বিটিভিতে বিভিন্ন সময় তথ্য অধিকার সম্পর্কিত আলোচনা অনুষ্ঠান ও টক শো করা হচ্ছে। টেলিভিশন চ্যানেলগুলো প্রচারে এগিয়ে আসলে জনগণ তথ্য অধিকার আইন সম্পর্কে আরো বেশি সচেতন হতে পারে। তথ্য অধিকারের সুফল সংক্রান্ত অনুষ্ঠান প্রচার হলে জনগণ তথ্য অধিকার প্রয়োগে আরো উৎসাহী হবে।

তথ্য অধিকার আইনের প্রচারে ও জনসচেতনতা সৃষ্টিতে মিডিয়াকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান প্রধান তথ্য কমিশনার।

তথ্য কমিশনার নেপাল চন্দ্র সরকার বলেন, ইতোমধ্যে আমরা ৬৪টি জেলা ও ২৬৭টি উপজেলায় জনঅবহিতকরণ সভা করেছি এবং প্রায় ১৭ হাজার দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে প্রশিক্ষণ দিয়েছি। তিনি বলেন, ২০১৬ সাল পর্যন্ত তথ্য অধিকার আইনে ৮৩ হাজার আবেদন হয়েছে যা বাংলাদেশের জনসংখ্যার তুলনায় অত্যন্ত কম।


স্বাক্ষরিত:-
৩০-১১-২০১৭
(লিটন কুমার প্রামাণিক)
জনসংযোগ কর্মকর্তা
তথ্য কশিমন
ফোন-৯১৩৭৩৩২
মোঃ ০১৭১০-৪৩৭২৬৬

 


Share with :
Facebook Facebook